চট্টগ্রাম, , রোববার, ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৮

চট্টগ্রামে ‘ব্লক রেইড’ চালাবে পুলিশ

প্রকাশ: ২০১৭-০৯-২৬ ২০:৪৬:৫৯ || আপডেট: ২০১৭-০৯-২৭ ১৩:৩১:৩৯

চট্টগ্রামের নগরের বিভিন্ন জায়গায় ‘ব্লক রেইড’ পরিচালনা করতে সংশ্লিষ্ট উর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের নির্দেশনা দিয়েছেন চট্টগ্রাম মহানগর পুলিশ (সিএমপি) কমিশনার মো. ইকবাল বাহার।

মঙ্গলবার সকালে দামপাড়াস্থ পুলিশ লাইনস্রে ড্রিল শেডে পুলিশের মাসিক কল্যাণ সভা ও অপরাধ সভায় তিনি এই নির্দেশনা দিয়েছেন।

চট্টগ্রাম মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত উপকমিশনার (জনসংযোগ) আকরামুল হোসেন বলেন, নির্দিষ্ট এলাকা ঘিরে তল্লাশি চালানোকে আমরা ‘ব্লক রেইড’ বলে থাকি। সভায় কমিশনার স্যার সকল জোনের উপকমিশনারদের স্ব স্ব জোনে ব্লক রেইড পরিচালনার জন্য নির্দেশ প্রদান করেন। সংশ্লিষ্ট ডিসিগণকে এই বিষয়টি তদারকি করার জন্য নির্দেশনা প্রদান করা হয়।

তিনি বলেন, সভায় ওয়ারেন্ট তামিল এবং ওয়ারেন্টের গায়ে তামিলকারী অফিসারের কৈফিয়ত উল্লেখ করা, অপমৃত্যু মামলা, নিয়মিত মামলা, ট্রাফিক সংক্রান্ত মামলা সমূহ দ্রুত নিষ্পত্তি করতে উপকমিশনার, সহকারি কমিশনার ও ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাদের তাগিদ দেয়া হয়।

সভায় আগস্ট মাসে অস্ত্র ও মাদক উদ্ধার, মামলার রহস্য উদঘাটন, গ্রেফতার ও ভাল কাজের জন্য বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে বিভিন্ন স্তরের ৯৬ জন পুলিশ সদস্য ও সিভিল স্টাফদেরকে নগদ অর্থ ও সম্মাননা সনদ প্রদান করা হয় বলে জানান অতিরিক্ত উপকমিশনার (জনসংযোগ) আকরামুল হোসেন।

সভায় অতিরিক্ত কমিশনার (প্রশাসন ও অর্থ) মাসুদ উল হাসান, অতিরিক্ত কমিশনার (ট্রাফিক) দেবদাস ভট্টাচার্য্য,অতিরিক্ত কমিশনার (ক্রাইম এন্ড অপারেশন), সালেহ মোহাম্মদ তানভীর, বিভিন্ন জোনের উপকমিশনার, সকল সহকারী পুলিশ কমিশনার ও ১৬ থানার ওসি উপস্থিত ছিলেন।

৩ Replies to “চট্টগ্রামে ‘ব্লক রেইড’ চালাবে পুলিশ”

  1. বিতর্কিত হলে ও বর্তমানকালীন পুলিশ, ও অন্য সবাই। সাধারন মানুষের না। তারা প্রভাবশালী ক্ষমতাশীল দের নেতা দের। আমাদের যেই আইনি চক্রপাদ তাই দেখে মনে হয় য়ে ওরা আমাদেরে কে নিয়েবান ব্যবসা করার গুরু করে। আমার একটাই অনুরূদ মানুষ কে কি রকম তাদের সম্নদে খবর নিন, নিজের প্রচেষ্টায়, অন্যের কথার উপর ভর করে না। পর আপনারা আসল অপরাধী কে বুজতে ও দরে আনতে সময় লাগবে না। অপরাধ করে অপরাধী আপনার সাথে বসে অপরাধ মুক্তো সমাজ চাইবে আর নিরঅপরাধী আপনার আইনি ক্ষমতা দিয়ে কিন্তু অপরাধী হবে। তখন সমাজে আরেক জন নতুন অপরাধীর জন্ম দিবেন আপনারা। আপনারা ও আমরা আসল বন্ধু। আপনাদেরকে আইনি ক্ষমতা প্রধান করার কারন হলো। আইনের ক্ষমতা প্রযোগ করে শান্তি পূর্ণ একটা এলেকা তৈরী করা । যেমনি একটা পরিবার। তার পর ভালো খারাপ চিন্নিহিত করেন। এবার ভালোকে ভালো আর খারাপকে খারাপ বলার সাহস হৃদয়ে রাখলে দেশে কোন অপরাধীর জন্ম হবে না। আজ নিজদেশকে বাচাতে সব রকমের দেশ রক্ষাবাহীনি প্রশাসন দেশপ্রমিক ভাইয়েরা দেশটাকে রক্ষা করতে পারেন। স্বাধীন দেশে আমরা মানবতা মমতাহীন কর্মকান্ডের সমাধান একমাত্র দেশরক্ষাবাহীনির হাতে।

আপনার মতামত দিন...

ক্যালেন্ডার এবং আর্কাইভ